একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী, অনলাইন টিকেট মূল্য ও ভাড়ার তালিকা, ও বিরতি স্টেশন ২০২৩

১৯৮৬ সালে সর্বপ্রথম একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি দিনাজপুর থেকে ঢাকার উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করেন। এক্সপ্রেস একটি আন্তঃনগর ট্রেন। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি ১ হাজার ২০০ যাত্রীর মত যাতায়াত করতে পারে। এক্সপ্রেস ট্রেনটি ১২ টি বগি রয়েছে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি প্রতিদিন ঢাকা থেকে দিনাজপুর এবং দিনাজপুর থেকে ঢাকা যাতায়াত করে থাকে। উত্তরবঙ্গের মানুষের জন্য একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি অনেক বড় ভূমিকা পালন করছে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের মাধ্যমে আপনি খুব সহজেই আপনার গন্তব্যস্থলে পৌঁছে যেতে পারবেন। আমাদের আজকের নিবন্ধনে আমরা আমাদের এই ওয়েবসাইটে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী, অনলাইন টিকেট মূল্য, ভাড়ার তালিকা সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরব।

যারা অনলাইনে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী, অনলাইন টিকেট মূল্য এবং বিস্তারিত ভাড়া সম্পর্কে জানার জন্য গুগলে সার্চ করে থাকেন তাদের জন্য অত্যন্ত খুশি সংবাদ আমাদের এই ওয়েবসাইটে একতা এক্সপ্রেস ট্রেন সম্পর্কে সকল তথ্য তুলে ধরব এতে করে আপনি খুব সহজে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনে যাতায়াত করতে পারবেন। এক আত্মা এক্সপ্রেস ট্রেনটি দিনাজপুর থেকে ঢাকা ঢাকা থেকে দিনাজপুর যাতায়াত করে সকল যাত্রীদের কাছে জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে।

উত্তরবঙ্গের যাতায়াতকারী ট্রেন গুলোর মধ্যে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি অন্যতম। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনে যাতায়াত কারি যাত্রীদেরকে বিভিন্নভাবে সুযোগ-সুবিধা প্রদান করা হয়ে থাকে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি দিনাজপুর থেকে ঢাকা যাতায়াতের সময় বিভিন্ন স্টেশন থেকে যাত্রীদের গন্তব্যস্থলে পৌঁছে দিয়ে থাকে। একথা এক্সপ্রেস ট্রেনে অত্যন্ত ভালো মানের খাবারের ব্যবস্থা এবং নামাজের জায়গায় রয়েছে। যারা একতা এক্সপ্রেস ট্রেনে যাতায়াত করতে চান তারা আমাদের এই ওয়েবসাইটে দেওয়া নিয়ম ফলো করে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের যাতায়াত করতে পারবেন।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী তুলে ধরা হলো ২০২৩

একতা এক্সপ্রেস ট্রেন ঢাকা থেকে দিনাজপুর এবং দিনাজপুর থেকে ঢাকা প্রতিদিন এক রুটে যাতায়াত করে থাকে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের যাতায়াতকারী নতুন এবং পুরাতন যাত্রীদের জন্য আজকে আমাদের এই ওয়েবসাইটে থাকছে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী। নিচে আপনাদের সুবিধার্থে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের সময়সূচী তুলে ধরা হলো।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেন প্রতিদিন কমলাপুর স্টেশন থেকে ঢাকা থেকে দিনাজপুর একি রুটে যাতায়াত করে থাকে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি সপ্তাহের সাতদিনই যাতায়াত করে থাকে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি ঢাকার উদ্দেশে দিনাজপুর থেকে ছাড়ে সকাল ১০ টা ১০ মিনিটে। অতঃপর কমলাপুর রেলস্টেশন থেকে নিজে পৌঁছায় ১৯ঃ০০ মিনিটে। এছাড়া ঢাকা থেকে পঞ্চগড় যে পৌঁছায় ৯ টা ৫০ মিনিটে। সকাল ৯ টা ১০ দিনাজপুর থেকে ঢাকা ঢাকার উদ্দেশে রওনা দেয় এবং ঢাকা যেয়ে পৌঁছায় রাত ৬ টা ৩০ মিনিটে।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের ভাড়ার তালিকা ২০২৩

বাংলাদেশের মধ্যে অন্যতম এবং বিলাসবহুল ট্রেন টি হল একতা এক্সপ্রেস ট্রেন। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের যাতায়াতকারী যাত্রীরা অনুসন্ধান করে থাকেন একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের ভাড়া সম্পর্কে জানার জন্য। তাই একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের নতুন যাত্রীদের জন্য একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের ভাড়ার তালিকা তুলে ধরা হলো। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি অত্যন্ত দ্রুতগতিতে যাতায়াত করে থাকে।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনে আপনি শোভন, শোভন চেয়ার, প্রথম বার্থ, এসি বার্থ সবগুলো থেকে আপনার পছন্দ মত যে কোন একটির মাধ্যমে যাতায়াত করতে পারবেন। দিনাজপুর থেকে ঢাকা যাতায়াতের পথে একতা এক্সপ্রেস ট্রেনটি নয়টি স্টেশন থেকে যাত্রী তোলে নির্দিষ্ট গন্তব্যস্থলে পৌঁছে দেন। একে স্টেশন থেকে যেহেতু যাত্রীরা যাতায়াত করে থাকে তাই ভাড়াটাও ভিন্ন ভিন্ন হয়ে থাকে।

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের বিরতি স্টেশন ২০২৩

একতা এক্সপ্রেস ট্রেনে যাতায়াতকারী যাত্রীরা দিনাজপুর থেকে ঢাকা এবং ঢাকা থেকে দিনাজপুর যাতায়াত করে থাকে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রীরা যেহেতু অত্যান্ত দূরবর্তী স্থানে যাতায়াত করে থাকে তাই প্রতিটি স্টেশনে বিরতি দিয়ে থাকে। একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের বিরতি স্টেশন গুলো হচ্ছে

জয়দেবপু, টাঙ্গাইল, শহীদ এম মনসুর আলী, ঈশ্বরদী, নাটোর, সান্তাহার, আক্কেলপুর, জয়পুরহাট, পাঁচবিবি, বিরামপুর, ফুলবাড়িয়া, পার্বতীপুর, চিরিরবন্দর, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও ইত্যাদি আরো অনেক জায়গায় বিরতি দিয়ে থাকে। আপনি যদি একতা এক্সপ্রেস ট্রেনে যাতায়াত করতে চান তাহলে অবশ্যই আপনাকে আমাদের এই ওয়েবসাইটে দেওয়ার নিয়ম ফলো করে আপনি একতা এক্সপ্রেস ট্রেনের বিরুদ্ধে স্টেশন সম্পর্কে জেনে নিতে পারবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *